গাজীপুরে মাকে কুপিয়ে হত্যার দায়ে ছেলের যাবজ্জীবন

গাজীপুর প্রতিনিধি

গাজীপুর

গাজীপুরে মাকে দা দিয়ে কুপিয়ে হত্যা মামলায় ছেলেকে যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত। একইসঙ্গে আসামিকে ১০ হাজার টাকা অর্থদণ্ড, অনাদায়ে আরও তিন মাসের সশ্রম কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে।

বৃহস্পতিবার সকালে গাজীপুরের জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মমতাজ বেগম এ রায় ঘোষণা করেন।

universel cardiac hospital

দণ্ডপ্রাপ্ত আসামি শাহজাহান খান ওরফে সাজু (৪৬) গাজীপুরের কালিয়াকৈর থানার কাঁচারস এলাকার আমছের আলী খানের ছেলে।

গাজীপুর আদালতের সরকারি কৌঁসুলি (পিপি) হারিস উদ্দিন আহমদ রায়ের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

মামলার সংক্ষিপ্ত বিবরণে জানা যায়, ২০১৬ সালের ১৯ মার্চ বাড়ির পার্শ্ববর্তী বাঁশঝাড় থেকে বাঁশ কাটার সময় শাহজাহানকে বাধা দেন তার বাবা আমছের আলী। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে ছেলে শাহজাহান বাবাকে গালিগালাজ করেন। এ ঘটনায় মা আনোয়ারা বেগম এগিয়ে এলে তাকেও বকাঝকা করেন। এক পর্যায়ে হাতে থাকা দা দিয়ে শাহজাহান তার মায়ের গলার বাম পাশে কোপ দিয়ে পালিয়ে যান। এতে ঘটনাস্থলেই মারা যান মা আনোয়ারা বেগম। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে মরদেহ উদ্ধার করে।

এ ঘটনায় নিহতের ভাই (শাহজাহানের মামা) মো. হাশেম বাদী হয়ে শাহজাহান, তার স্ত্রী মাজেদা বেগম ও ছেলে মো. মাসুম মিয়াকে আসামি করে থানায় একটি মামলা করেন। একই বছরের ২ মে শাহজাহান আদালতে আত্মসমর্পণ করলে আদালত তাকে কারাগারে পাঠান। পরে তিনি আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন। দীর্ঘ তদন্ত ও সাক্ষ্য-প্রমাণের ভিত্তিতে ৩০২ ধারায় অভিযোগ প্রাথমিকভাবে প্রমাণিত হওয়ায় ২০১৬ সালের ৩০ আগস্ট শাহজাহানের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দাখিল করা হয়। অপর আসামিদের বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায় মামলা থেকে অব্যহতি দেওয়া হয়। ওই বছরের ১ নভেম্বর শাহজাহানের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করা হয়। মোট ১৩ জন সাক্ষীর সাক্ষ্য গ্রহণ শেষে আসামি শাহজাহান খান ওরফে সাজুকে দোষী সাব্যস্ত করে বৃহস্পতিবার আদালত এ মামলার রায় দেন।

শেয়ার করুন
  • 13
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    13
    Shares