সমাজকল্যাণমন্ত্রীর বকেয়া বিদ্যুৎ বিল পরিশোধ

লালমনিরহাট প্রতিনিধি

সমাজকল্যাণমন্ত্রী ও লালমনিরহাট-২ (আদিতমারী-কালীগঞ্জ) আসনের সংসদ সদস্য নুরুজ্জামান আহমেদ এবং তার ছেলে ও প্রয়াত বাবার নামে চালু থাকা বৈদ্যুতিক সংযোগের বিপরীতে মোট ১ লাখ ৭১ হাজার ৫৩৬ টাকার বকেয়া বিদ্যুৎ বিল পরিশোধ করা হয়েছে। তবে মন্ত্রীর সৎভাই শামসুজ্জামান আহমেদের তিন বছরের বকেয়া বিদ্যুৎ বিল সোয়া ৭ লাখ টাকা এখনো পরিশোধ করা হয়নি।

গতকাল বৃহস্পতিবার রাতে অনলাইন মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে নেসকোর অনুকূলে সমাজকল্যাণমন্ত্রীর বাড়ির বকেয়া বিদ্যুৎ বিল পরিশোধ করা হয়। সমাজকল্যাণমন্ত্রীর ছেলে জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক রাকিবুজ্জামান আহমেদ, তার ব্যবস্থাপক মোহাম্মদ হোসেন ও কালীগঞ্জ বাসস্ট্যান্ড বাজারের আল আমিন টেলিকমের স্বত্বাধিকারী আল আমিন হোসেন বিল পরিশোধের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

universel cardiac hospital

আল আমিন হোসেন আজ শুক্রবার দুপুরে মুঠোফোনে বলেন, সমাজকল্যাণমন্ত্রী নুরুজ্জামান আহমেদ, তার ছেলে রাকিবুজ্জামান আহমেদ ও মন্ত্রীর প্রয়াত বাবা করিম উদ্দিন আহমেদের নামে চালু থাকা চারটি বৈদ্যুতিক সংযোগের বকেয়া বিদ্যুৎ বিল ১ লাখ ৭১ হাজার ৫৩৬ টাকা নেসকোকে বিকাশ, রকেট, নগদ ও জিপের মাধ্যমে পরিশোধ করা হয়েছে। গতকাল বিকেল থেকে রাতের মধ্যে বিল পরিশোধ করা হয়।

সমাজকল্যাণমন্ত্রী নুরুজ্জামান আহমেদ, তার ছেলে রাকিবুজ্জামান আহমেদ, সৎভাই শামসুজ্জামান এবং প্রয়াত বাবা ও সাবেক সংসদ সদস্য করিম উদ্দিন আহমেদ- নেসকোর ওয়েবসাইটে ঢুকে চারজনের বিদ্যুতের বকেয়া বিলসংক্রান্ত তথ্য–উপাত্ত পাওয়া যায়। সব মিলিয়ে তাদের মোট বকেয়া বিদ্যুৎ বিল ছিল ৮ লাখ ৯৬ হাজার ৬৮০ টাকা। আগের কয়েক মাসের বকেয়াসহ ২০২০ সালের সেপ্টেম্বর থেকে চলতি বছরের জুলাই পর্যন্ত এসব বিল বকেয়া হয়। এ নিয়ে গত বুধবার ‘মন্ত্রীর বাড়ির বিদ্যুৎ বিল বকেয়া’ শিরোনামে জাতীয় পত্রিকায় প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়।

শেয়ার করুন