পাকিস্তানের নৌ বিমানঘাঁটিতে সন্ত্রাসী হামলা, সেনাসহ নিহত ৫

পাকিস্তানের বেলুচিস্তানের তুরবাতে অবস্থিত দেশটির দ্বিতীয় বৃহত্তম নৌ বিমানঘাঁটি পিএনএস সিদ্দিক-এ সোমবার গভীর রাতে সন্ত্রাসী হামলা চালানো হয়। এই হামলায় বেলুচিস্তান ফ্রন্টিয়ার কর্পসের একজন সৈনিক নিহত হয়েছেন এবং ৪ সন্ত্রাসীকে হত্যা করা হয় বলে জানিয়েছে দেশটির সেনাবাহিনীর মিডিয়া বিষয়ক শাখা (আইএসপিআর)।

নিষিদ্ধ বেলুচিস্তান লিবারেশন আর্মি (বিএলএ)-এর মাজিদ ব্রিগেড তুরবাতে এই হামলার দায় স্বীকার করেছে। মাজিদ ব্রিগেড বেলুচিস্তানে চীনের বিনিয়োগের সমালোচনা করে এবং চীন ও পাকিস্তান উভয়কেই এই অঞ্চলের সম্পদ শোষণের অভিযোগ করে।

universel cardiac hospital

বিএলএ দাবি করেছে, তারা হামলায় ‘এক ডজনেরও বেশি’ পাকিস্তানি সৈন্যকে হত্যা করেছে। এছাড়াও অন্তত ৪টি হেলিকপ্টার ও ৩টি ড্রোন ধ্বংস করে দেওয়া হয়েছে বলেও দাবি জানায় গোষ্ঠীটি।

তবে এক বিবৃতিতে পাকিস্তানের আন্তঃবাহিনী জনসংযোগ পরিদপ্তর (আইএসপিআর) বলেছে, ‘সন্ত্রাসীরা গত রাতে তুরবাতে পিএনএস সিদ্দিকে হামলার চেষ্টা করেছিল। কিন্তু সৈন্যদের দ্রুত এবং কার্যকর প্রতিক্রিয়ার কারণে প্রচেষ্টাটি ব্যর্থ হয়েছে।’

এতে আর বলা হয়, ‘সশস্ত্র বাহিনীর সমন্বয়মূলক এবং কার্যকর প্রতিক্রিয়া পরবর্তী যৌথ ক্লিয়ারেন্স অপারেশনে চার সন্ত্রাসীকে হত্যা করা হয়, তবে দুঃভাগ্যবসত বেলুচিস্তান ফ্রন্টিয়ার কর্পসের একজন সৈনিক শহীদ হয়েছেন।’

প্রসঙ্গত, এটি তুরবাতে বিএলএ মাজিদ ব্রিগেডের চলতি সপ্তাহের দ্বিতীয় এবং এই বছরের তৃতীয় হামলা। গত ২০ মার্চ গোয়াদরে সামরিক গোয়েন্দা সদর দপ্তরে হামলা চালিয়েছিল গোষ্ঠটি। এদিন পাকিস্তান গোয়াদর বন্দর কর্তৃপক্ষ কমপ্লেক্সে একাধিক বিস্ফোরণ এবং বন্দুকযুদ্ধে দুই পাকিস্তানি সেনা এবং আট সন্ত্রাসী নিহত হয়।

সূত্র: ডন

শেয়ার করুন