ভারত যে হিন্দু রাষ্ট্র নয় তার প্রতিফলন ঘটেছে লোকসভা নির্বাচনে : অমর্ত্য সেন

মত ও পথ ডেস্ক

নোবেলজয়ী অর্থনীতিবিদ ড. অমর্ত্য সেন
নোবেলজয়ী অর্থনীতিবিদ ড. অমর্ত্য সেন। ফাইল ছবি

নোবেলজয়ী অর্থনীতিবিদ অমর্ত্য সেন বলেন, ভারতবর্ষ যে হিন্দু রাষ্ট্র নয়, এবারের লোকসভা নির্বাচনে তার প্রতিফলন বেশ ভালোভাবেই ঘটেছে। ভারতবর্ষ একটি ধর্মনিরপেক্ষ দেশ, সেটাকে হিন্দু রাষ্ট্র বানানোর চেষ্টা করা সমীচীন নয়। বুধবার (২৬ জুন) কলকাতা আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে নেমেই সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে এমন মন্তব্য করেন তিনি।

অমর্ত্য সেন বলেন, আমি যখন ছোট ছিলাম, আমার চাচাতো ভাইদের অনেকেই জেলে ছিলেন। ভেবেছিলাম, স্বাধীনতার পর দেশে বিনা বিচারে জেলে ভরা বন্ধ হবে। কিন্তু তা এখনো চলছে। তাতে জাতীয় কংগ্রেসের দোষ আছে। তারা এটা বদলায়নি। তবে বর্তমান সরকার সেটাকে বেশি করে ব্যবহার করছে। দেশে বেকারত্ব বাড়ছে।

universel cardiac hospital

তিনি বলেন, শিক্ষা, স্বাস্থ্য এখনো অবহেলিত। এখন আরও বেশি অবহেলা দেখা যাচ্ছে। কংগ্রেস ও বামপন্থি নিয়ে আপত্তির কথা তুলতে পারি। তবে তার চেয়ে বেশি কষ্ট পেয়েছি, বর্তমান সরকারের আমলে। আমাদের এই অবস্থার পরিবর্তন করা দরকার।

নোবেলজয়ী এই অর্থনীতিবিদ বলেন, বিগত দিনে যা যা কাজ হয়েছে ও এখনো চলছে, তা হলো- কিছু লোককে জেলে পোরা। ধনী-দরিদ্রদের মধ্যে পার্থক্য আরও বেড়েছে। এগুলো বন্ধ হওয়া দরকার। সবাইকে রাজনৈতিক চর্চা নিয়ে মুক্তমনা হওয়া দরকার।

তিনি আরও বলেন, অনেক খরচ করে বড় মন্দির বানিয়েছে। এর দু’টো দিক আছে।একটি হলো, মহাত্মা গান্ধী, রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর, সুভাষচন্দ্র বসুর দেশে এটা হওয়ার কথা নয়। একই ভাবে,ধনিদের উপর নির্ভরশীলতা বেশি, দরিদ্রদের অবহেলা করার প্রথা চলছে বহু দিন ধরেই এই সরকারের। বর্তমানে যে মন্ত্রিসভা হয়েছে তা আগের মন্ত্রিসভার মতোই। মন্ত্রীরা সব একই। একটু রদবদল হলেও, রাজনৈতিকভাবে যারা শক্তিশালী তারা এখনো শক্তিশালী।

নোবেলজয়ী এই অর্থনীতিবিদ বলেন, চলতি বছরের লোকসভা নির্বাচনের ফলাফল সব হিসাব পাল্টে দিয়েছে। বিজেপির একক সংখ্যাগরিষ্ঠতা পাওয়া তো দূরের কথা, ন্যাশনাল ডেমোক্রেটিক অ্যালায়েন্স (এনডিএ) জোটের ওপর ভরসা করে সরকার গড়তে হয়েছে নরেন্দ্র মোদীকে। বিরোধীদলগুলো উঠে এসেছে সুবিধাজনক জায়গায়। ১০ বছর পর ভারতের লোকসভা বিরোধী দলনেতা পেয়েছে। আশা করি দেশে কিছু পরিবর্তন আসবে।

শেয়ার করুন