তিস্তা প্রকল্প নিয়ে বাংলাদেশই সিদ্ধান্ত নেবে : চীনা রাষ্ট্রদূত

মত ও পথ ডেস্ক

সংগৃহীত ছবি

তিস্তা প্রকল্পের দ্রুত বাস্তবায়ন চায় চীন। এ প্রকল্প নিয়ে বাংলাদেশই সিদ্ধান্ত নেবে, বলেছেন ঢাকায় নিযুক্ত চীনের রাষ্ট্রদূত ইয়াও ওয়েন। বৃহস্পতিবার (৪ জুলাই) জাতীয় প্রেস ক্লাবে ডিপ্লোম্যাটিক করেসপন্ডেন্টস অ্যাসোসিয়েশন বাংলাদেশ (ডিকাব) আয়োজিত ‘ডিকাব টক’ অনুষ্ঠানে তিনি সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে এসব কথা বলেন।

এক প্রশ্নের উত্তরে চীনা রাষ্ট্রদূত বলেন, বাংলাদেশ সরকারের প্রস্তাবে তিস্তা প্রকল্প নিয়ে আমরা কাজ করেছি। তবে এ প্রকল্প বাস্তবায়ন কে করবে, তা বাংলাদেশ সরকারই সিদ্ধান্ত নেবে। আমরা চাই, এ প্রকল্প বাস্তবায়ন হোক, এটি উত্তরাঞ্চলের মানুষের জন্যই প্রয়োজন। প্রকল্পটি নিয়ে বাংলাদেশের সিদ্ধান্তই চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত।

universel cardiac hospital

প্রধানমন্ত্রীর চীন সফরে কয়টি চুক্তি হবে- জানতে চাইলে রাষ্ট্রদূত বলেন, তা জানতে হলে কিছুদিন অপেক্ষা করতে হবে। তবে গঠনমূলক আলোচনা হবে। বাণিজ্য, বিনিয়োগ, কৃষি, এফটিএ, ফাইন্যান্সিয়াল, মিডিয়া, শিক্ষা প্রভৃতি বিষয়ে প্রাধান্য পাবে।

এক প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, বাংলাদেশের রিজার্ভ সংকট মোকাবিলায় সহযোগিতা দিতে চায় চীন। বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রীর চীন সফরকালে এ বিষয়ে যুগান্তরকারী সিদ্ধান্ত আসবে বলে আশা করি।

রাষ্ট্রদূত বলেন, বৈশ্বিক শান্তি ও স্থিতিশীলতায় বাংলাদেশ-চীন একযোগে কাজ করছে। ইউক্রেন, মধ্যপ্রাচ্যে একই নীতি, বিশ্ব শান্তি ও স্থিতিশীলতায় একই নীতি।

বাংলাদেশের পররাষ্ট্র নীতির প্রশংসা করেন তিনি। এক প্রশ্নের উত্তরে রাষ্ট্রদূত বলেন, বাংলাদেশ তার প্রতিবেশীদের সঙ্গে সুসম্পর্ক রাখবে, চীন এটিই প্রত্যাশা করে। বাংলাদেশের প্রতিবেশীদের সঙ্গে সম্পর্ক নিয়ে চীনের কোনো দুশ্চিন্তা নেই।

রোহিঙ্গা ইস্যু নিয়ে ইয়াও ওয়েন বলেন, রোহিঙ্গা ইস্যু বাংলাদেশ-চীন উভয়ের জন্যই চ্যালেঞ্জ। মিয়ানমারের সঙ্গে রোহিঙ্গা ইস্যু নিয়ে চীন কাজ করছে। সেখানে অভ্যন্তরীণ সংঘর্ষ চলছে, তবে আমরা থেমে নেই।

অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য দেন ডিকাব প্রেসিডেন্ট নূরুল ইসলাম হাসিব ও সাধারণ সম্পাদক আশিকুর রহমান অপু।

শেয়ার করুন