ইরানের দক্ষিণাঞ্চলে আকস্মিক বন্যায় ১৯ জনের মৃত্যু

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

তীব্র বন্যায় গাড়িগুলো পানিতে ভেসে গেছে ও ঘরবাড়ির ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে –ছবি : বিবিসি

ইরানের দক্ষিণাঞ্চলে আকস্মিক বন্যায় অন্তত ১৯ জনের মৃত্যু হয়েছে। এতে আহত হয়েছে শতাধিক মানুষ। ইরানের ফার্স প্রদেশের শিরাজ শহরে প্রবল বৃষ্টিপাতের কারণে এই পরিস্থিতি সৃষ্টি হয়েছে বলে জানিয়েছে দেশটির কর্তৃপক্ষ।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে আসা ফুটেজে দেখা গেছে কর্দমাক্ত পানির তীব্র স্রোত শিরাজ শহরের মধ্য দিয়ে বয়ে যাচ্ছে, লোকজন ল্যাম্পপোস্ট আঁকড়ে ধরে ও গাড়ির ছাদে উঠে আত্মরক্ষার চেষ্টা করছেন।

শিরাজেই সবচেয়ে বেশি মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে বলে বিবিসির খবরে বলা হয়েছে।

আকস্মিক এ বন্যার ধাক্কায় শহরটির কয়েকশ ভবন ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে বলে প্রকাশিত প্রতিবেদনগুলোতে বলা হয়েছে।

পারসিক নতুন বছর ‘নওরোজের’ ছুটি চলাকালীন এ প্রাকৃতিক দুর্যোগের সময় অধিকাংশ সরকারি দপ্তরই বন্ধ ছিল।  

দুর্যোগ মোকাবিলায় সরকারি দপ্তরগুলোর কোনো গাফিলতি ছিল কি না তা তদন্ত করে দেখা হবে বলে জানিয়েছে ইরানের বিচার বিভাগ।

ফার্স প্রদেশের গভর্নর এনায়েতুল্লাহ রাহিমি জানিয়েছেন, বন্যা নিয়ন্ত্রণে আনা হয়েছে এবং সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত এলাকাগুলোতে উদ্ধারকারী টিম মোতায়েন করা হয়েছে।

ক্ষতি এড়াতে বন্যাক্রান্ত এলাকাগুলোর বাসিন্দাদের ঘরে অবস্থান করার পরামর্শ দিয়েছেন তিনি।

পরবর্তী কয়েক ঘন্টা ও আসছে দিনগুলোতে দেশটির উত্তর ও পূর্বাঞ্চলে প্রবল বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা আছে বলে পূর্বাভাস দেওয়া হয়েছে। রাজধানী তেহরানসহ প্রায় সব প্রদেশে বন্যা সতর্কতা জারি করা হয়েছে।

শেয়ার করুন
  • 11
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    11
    Shares

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here