জনগণ খালেদা জিয়াকে মুক্ত করে গণতন্ত্র পুনরুদ্ধার করবে : ফখরুল

রাজনীতি ডেস্ক

বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর এক যুগেরও বেশি সময় ধরে দল ক্ষমতার বাইরে থাকা নেতাকর্মীদের অনেকের মধ্যে হতাশা চলে এলেও নিজে হতাশ নন। বরং বিএনপি ঘুরে দাঁড়াবে বলে বিশ্বাস তার।

ফখরুল বলেন, অনেকে হতাশার কথা বলেন, আমি হতাশায় বিশ্বাস করি না। শহীদ জিয়ার চিন্তা ও আদর্শ এবং খালেদা জিয়ার অবদান ব্যর্থ হওয়ার নয়। আমাদের সামনের দিকে এগিয়ে যাওয়ার শপথ নিতে হবে। কাজেই বিভেদ বিভাজন নয়, বিএনপি ঘুরে দাঁড়াবে বলে আমার বিশ্বাস।

আজ বুধবার দুপুরে রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন মিলনায়তনে বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা জিয়াউর রহমানের ৩৮তম শাহাদাতবার্ষিকীর আলোচনা সভায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

মির্জা ফখরুল বলেন, খালেদা জিয়ার অবদান, ত্যাগ স্বীকার কখনোই ব্যর্থ হওয়ার নয়। আসুন আমরা দেশনেত্রী খালেদা জিয়ার মুক্তির জন্য শপথ গ্রহণ করি। গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারের জন্য শপথ গ্রহণ করি এবং বিএনপিকে একটি সত্যিকার অর্থেই শক্তিশালী সংগঠন, যা জনগণের মাঝে সবচেয়ে জনপ্রিয় সংগঠন হিসেবে সামনের দিকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার শপথ গ্রহণ করি।

বিএনপি মহাসচিব বলেন, শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের এই শাহাদাতবার্ষিকীতে আমাদের শপথ নিতে হবে যে, আমরা সবাই ঐক্যবদ্ধ থাকব, বিভক্তির চিন্তা করব না, আমরা কোনো বিভাজনের চিন্তা করব না। আমরা শহীদ জিয়ার আদর্শকে অনুসরণ করে বিএনপিকে একটি শক্তিশালী সংগঠনে পরিণত করে বাংলাদেশকে সামনের দিকে এগিয়ে নিতে কাজ করব।

ফখরুল বলেন, দেশের মানুষ জিয়াউর রহমানকে ভালোবাসেন, খালেদা জিয়াকে ভালোবাসেন, অবশ্যই তারা উঠে দাঁড়াবেন, বিএনপি উঠে দাঁড়াবে, খালেদা জিয়াকে মুক্ত করে গণতন্ত্রকে পুনরুদ্ধার করবে।

আলোচনা সভায় অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য  খন্দকার মোশাররফ হোসেন, আব্দুল মঈন খান, ভাইস চেয়ারম্যান এজেডএম জাহিদ হোসেন, আহমেদ আযম খান, সেলিমা রহমান, প্রচার সম্পাদক শহীদ উদ্দিন চৌধুরী এ্যানী প্রমুখ।

শেয়ার করুন
  • 18
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    18
    Shares

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে