অ্যাকাউন্টিং ফার্মগুলো বিধিমালার আওতায় আনা হচ্ছে

অর্থনৈতিক প্রতিবেদক

বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের আয় ব্যায়ের হিসাব নির্ণয়কারী অ্যাকাউন্টিং ফার্মগুলোকে বিধিমালার আওতায় আনা হচ্ছে।

আয়কর মেলার দ্বিতীয় দিনে আজ শুক্রবার এমন ইঙ্গিত দিয়ে এনবিআর চেয়ারম্যান মোশাররফ হোসেন ভূঁইয়া বলেন, প্রতিষ্ঠানগুলোতে স্বচ্ছতা ও দায়বদ্ধতা আনা দরকার।

তিনি বলেন, একটা সমস্যার কথা সবাই বলে। যার যত আয়কর দেয়ার কথা, আমাদের ব্যবসা প্রতিষ্ঠানগুলো তা দেয় না। আমরা এরইমধ্যে একটা ব্যবস্থা নিয়েছি। অ্যাকাউন্টিং যে ফার্মগুলো আমাদের দেশে আছে, তাদের সঙ্গে মিটিং করে একটা স্বচ্ছতা আনা যাতে তারাও দায়বদ্ধতার মধ্যে আসে। তারা অনেক সময় প্রতিষ্ঠানগুলোর আয়-ব্যয়ের সঠিক হিসাব দেয় না। সেইসব প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য আইন ও বিধিমালা তৈরি করে ফেলব।

দেশে নারী করদাতাদের সংখ্যা বাড়ছে বলে জানিয়ে জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) চেয়ারম্যান বলেন, দিন দিন আয়কর মেলা জনপ্রিয় হয়ে উঠছে। প্রচুর মানুষ কর দিচ্ছেন। এবার নারী করদাতারাও আসছেন। গতকাল যারা কর দিয়েছেন এর মধ্যে ৩০ শতাংশই নারী করদাতা। মেলা ঘুরে দেখতে পেয়েছি নারীরা খুব আগ্রহ নিয়ে বসে বসে নিজেরাই রিটার্ন ফরম পূরণ করছেন। গতবছরও স্বতঃস্ফূর্তভাবে তারা কর দিয়েছেন।

সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে এনবিআর চেয়ারম্যান বলেন, প্রতিবছরই আয়কর মেলার পরিধি বাড়ছে। আয়কর মেলা জনপ্রিয় হচ্ছে। মেলায় প্রথমদিনে আয়কর আদায়ে গত বছরের চেয়ে ৪২ শতাংশ প্রবৃদ্ধি হয়েছে। মানুষের মধ্যে সচেতনতা বাড়ছে। আয়কর দিতে হবে এটি আমাদের নৈতিক দায়িত্ব, মানুষ সেটি বুঝতে পেরেছে।

তিনি বলেন, কর জিডিপি অনুপাত এখনও কাঙ্ক্ষিত হারের চেয়ে যে কম এটি অবশ্যই আমাদের উন্নত করতে হবে। যাদের সামর্থ্য আছে তারা যেন আমাদের সেবা গ্রহণ করে এবং উন্নয়নে শামিল হয়। মেলায় আমাদের কর্মকর্তা ও কর্মচারীরা স্বচ্ছভাবে সেবা দিচ্ছে। মেলার পরেও যেন তা অব্যাহত থাকে। হয়রানিও ক্রমান্বয়ে কমে আসছে।

শেয়ার করুন
  • 2
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    2
    Shares

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে