অস্ট্রেলিয়ায় দাবানল নিয়ন্ত্রণে ৩ হাজার সেনা মোতায়েনের সিদ্ধান্ত

ডেস্ক রিপোর্ট

দুই মাসেরও বেশি সময় ধরে ভয়াবহ দাবানলে পুড়ছে অস্ট্রেলিয়া। কিছুতেই আগুন নিয়ন্ত্রণে আনতে পারছে না দেশটির সরকার। এরইমধ্যে দাবানলে প্রাণ গেছে অন্তত ১৮ জনের। আর ৫০ কোটি প্রাণী নিহতের খবর প্রকাশ করেছে অস্ট্রেলিয়ার গণমাধ্যম।

বিলুপ্তির ঝুঁকিতে পড়েছে কোয়েলা, প্লাটিপাসের মতো প্রাণী। এমতাবস্থায় আগুন নিয়ন্ত্রণে এবার তিন হাজার সেনা মোতায়েন করতে যাচ্ছে দেশটির সরকার যা অস্ট্রেলিয়ার ইতিহাসে এই প্রথম ঘটতে যাচ্ছে।

আজ শনিবার এক সংবাদ সম্মেলনে অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসন এ ঘোষণা দিয়েছেন বলে জানিয়েছে ব্রিটেনভিত্তিক সংবাদমাধ্যম বিবিসি।

প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসন ঘোষণা দিয়েছেন, দুর্যোগ ভয়াবহ রূপ ধারণ করে সব গ্রাস করে নিচ্ছে। আগুন মোকাবেলায় দেশজুড়ে তিন হাজার সেনা মোতায়েন করা হবে। এছাড়া চারটি পানি-ছিটানো বিমানের ব্যবহার আরও জোড়দার করা হয়েছে। এজন্য ২০ মিলিয়ন অস্ট্রেলিয়ান ডলার বরাদ্দ দেয়া হয়েছে।

এদিকে দেশটির প্রতিরক্ষামন্ত্রী লিন্ডা রেনল্ডস বলেছেন, দুর্যোগ মোকাবেলায় সেনা মোতায়েনের ঘটনা অস্ট্রেলিয়ার ইতিহাসে এ প্রথম ঘটেছে।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছে অস্ট্রেলিয়ার দাবানলে ভয়ঙ্কর সব ভিডিও।

কয়েকটি ভিডিওতে দেখা গেছে, আগুনের লেলিহান থেকে বাঁচার চেষ্টা করছে অস্ট্রেলিয়ার পূর্ব উপকূলবর্তী অঞ্চলের ক্যাঙ্গারুরা। নিউ সাউথ ওয়েলস রাজ্যের মধ্য-দক্ষিণ উপকূলবর্তী অঞ্চলে অসংখ্য কোয়ালার পোড়া মৃত দেহ দেখা গেছে। বিভিন্ন স্থানে কাকাতুয়া, বাদুরসহ অন্য অনেক পাখি মরে গাছের নিচে পড়ে থাকতে দেখা গেছে।

আগুন থেকে বাঁচতে আশ্রয় নেয়া কৃষকদের ঘরবাড়ি ও ফসলি জমি পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। রক্ষায় পায়নি তাদের গৃহপালিত পশুরাও।

বিভিন্ন আর্ন্তজাতিক গণমাধ্যমের খবর, দাবানলে অস্ট্রেলিয়ায় তাপমাত্রা ক্রমশ বাড়ছে। দেশটির সব স্থানে তাপমাত্রা ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াসের ওপরে উঠেছে। চুলার আগুন ছাড়াই ডিম, মাংস সেদ্ধ হয়ে যাচ্ছে। সেই সঙ্গে বয়ে চলা প্রবল ঝড়ো হাওয়া আগুনের লেলিহান শিখাকে তীব্রতর করছে।

শেয়ার করুন
  • 2
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    2
    Shares

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে