দিল্লির সাম্প্রদায়িক দাঙ্গা: স্পিকারের ভারত সফর স্থগিত

মত ও পথ প্রতিবেদক

নির্ধারিত দিল্লি সফর স্থগিত করেছেন জাতীয় সংসদের স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী। সেখানে সাম্প্রদায়িক দাঙ্গার কারণে এ সফর স্থগিত হলেও কেউ আনুষ্ঠানিকভাবে তা স্বীকার করতে চাননি।

২ থেকে ৬ মার্চ পর্যন্ত স্পিকারের নেতৃত্বে একটি প্রতিনিধি দলের দিল্লি থাকার কথা ছিল। তবে সফরের একদিন আগে রোববার অনিবার্য কারণ দেখিয়ে আকস্মিকভাবে এ সফর স্থগিত করা হলো।

সফরসঙ্গীদের অনেকের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, সেখানে সাম্প্রদায়িক দাঙ্গার কারণে এটি স্থগিত করা হয়েছে।

জানা যায়, স্পিকারের এ সফরে বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকীতে জাতীয় সংসদের নানা অনুষ্ঠানমালায় ভারতের লোকসভার স্পিকার ওম বিড়লাকে আমন্ত্রণ জানানো ছাড়াও সাবেক রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখার্জিসহ শীর্ষ নেতাদের আমন্ত্রণ জানানোর কথা ছিল। ইতোপূর্বে পররাষ্ট্র দফতরের মাধ্যমে আমন্ত্রণ জানানো হলেও আনুষ্ঠানিকভাবেই আমন্ত্রণ দিতেই স্পিকারের এ দিল্লি সফরের উদ্দেশ্য ছিল।

এর মধ্যে আগামী ২২ ও ২৩ মার্চ অনুষ্ঠেয় জাতীয় সংসদের বিশেষ অধিবেশনে বক্তা হিসেবে সাবেক রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখার্জিকে আমন্ত্রণ জানানোর সিদ্ধান্ত রয়েছে। স্পিকারের এ সফরে তার সঙ্গে বৈঠকের কথা ছিল বলে সংসদ সচিবালয়ের এক কর্মকর্তা জানিয়েছেন, পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণে নিয়ে পরবর্তী ব্যবস্থা নেয়া হবে।

প্রতিনিধি দলে স্পিকার ছাড়াও চিফ হুইপ-নূর-ই আলম চৌধুরী, হুইপ ইকবালুর রহীমসহ সংসদ সদস্য ও কর্মকর্তা মিলে ১৮ জনের যাওয়ার কথা ছিল।

সংশোধিত নাগরিকত্ব আইনের (সিএএ) বিরোধী ও সমর্থকদের মধ্যে গত ২৩ ফেব্রুয়ারি থেকে ২৬ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত দফায় দফায় সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। তাতে এখনও পর্যন্ত ৪২ জনের মৃত্যু হয়েছে। আহত হয়েছেন দুই শতাধিক।

ভারতের নাগরিকত্ব (সংশোধন) আইন (সিএএ) এবং জাতীয় নাগরিকপঞ্জি (এনআরসি) নিয়ে বিতর্ক তৈরির পর এর আগে বাংলাদেশের তিন মন্ত্রীর দিল্লি সফর বাতিল করা হয়েছে। গত বছরের ডিসেম্বরে প্রথমে পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও পরে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর ভারত সফর বাতিল করা হয়। দুই মন্ত্রীর সফর স্থগিতের পর যৌথ নদী কমিশনের (জেআরসি) বৈঠকও স্থগিত করে বাংলাদেশ। এরপর পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলমের ভারত সফর বাতিল করা হয়। ১৩-১৪ জানুয়ারি ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় আয়োজিত আন্তর্জাতিক সম্মেলন রাইসিনা সংলাপে তার উপস্থিত থাকার কথা ছিল তার।

পরে অবশ্য তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ চারদিনের সফরে ১৩ জানুয়ারি ভারত যান। দুই দেশের তথ্যখাতে সহযোগিতা প্রসারের লক্ষ্যে ওই সফরে যান তিনি।

শেয়ার করুন
  • 17
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    17
    Shares

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে