বহাল থাকছে ওয়াসার পানির বাড়তি দাম

নিজস্ব প্রতিবেদক

ওয়াসার পানির ২৫ শতাংশ বাড়তি দাম আদায়ের ওপর হাইকোর্টের নিষেধাজ্ঞা ১৬ সপ্তাহের জন্য স্থগিত করেছে আপিল বিভাগের চেম্বার আদালত।

ফলে গত ১ এপ্রিল থেকে কার্যকর হওয়া ওয়াসার পানির বর্ধিত দাম আদায়ে কোনো বাধা থাকলো না বলে ভাষ্য সংশ্লিষ্ট আইনজীবীদের।

হাইকোর্টের ওই নিষেধাজ্ঞা স্থগিত চেয়ে ওয়াসার আবেদন শুনানির পর মঙ্গলবার বিচারপতি মো. নূরুজ্জামানের ভার্চুয়াল আদালত তা মঞ্জুর করে এ আদেশ দেয়।

ওয়াসার পানির দাম বৃদ্ধি নিয়ে জনস্বার্থে গত ১৫ জুন একটি রিট আবেদন করেন সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী মো. তানভীর আহমেদ। গত ২২ জুন এ সংক্রান্ত রিট আবেদন শুনানির পর বিচারপতি এম. ইনায়েতুর রহিমের ভার্চুয়াল হাইকোর্ট বেঞ্চ এক আদেশে ঢাকা ওয়াসার পানির ২৫ শতাংশ বর্ধিত দাম আদায়ের ওপর আগামী ১০ আগস্ট পর্যন্ত নিষেধাজ্ঞা দেয়।

হাইকোর্টের এই আদেশ স্থগিত চেয়ে ওই দিনই আপিল বিভাগের চেম্বার আদালতে আবেদন করে ওয়াসা। ২৩ জুন আংশিক শুনানি শেষে পরবর্তী শুনানির জন্য ৩০ জুন ধার্য করা হয়।

ভিডিও কনফারেন্সে ওয়াসার পক্ষে মঙ্গলবার শুনানিতে ছিলেন জ্যেষ্ঠ আইনজীবী ও রাষ্ট্রের প্রধান আইন কর্মকর্তা মাহবুবে আলম। আর রিট আবেদনের পক্ষে ছিলেন আইনজীবী অনিক আর হক।

চেম্বার আদালতের এই আদেশের ফলে গত তিনমাস ধরে ওয়াসা যে বাড়তি দাম আদায় করে আসছিল সেটিই বহাল থাকল বলে সংশ্লিষ্ট আইনজীবীরা জানিয়েছেন।

ওই রিট আবেদনে পানি সরবরাহ ও পয়োনিষ্কাশন কর্তৃপক্ষ আইন, ১৯৯৬ এর ২২ (৩) ধারা অনুযায়ী পানির দাম বাড়িয়ে গত ২৬ শে ফেব্রুয়ারি স্থানীয় সরকার বিভাগের সিদ্ধান্তটিকে চ্যালেঞ্জ করা হয়।

স্থানীয় সরকার বিভাগ থেকে গত ২৬ ফেব্রুয়ারি ওয়াসার পানির দাম বাড়িয়ে একটি অফিস আদেশ জারি করা হয়। গত ১ এপ্রিল থেকে অফিস আদেশটি কার্যকর হয়।

আদেশে বলা হয়, আবাসিকে ঢাকা ওয়াসার সরবরাহকৃত প্রতি এক হাজার লিটার পানির দাম ১১ টাকা ৫৭ পয়সা থেকে বাড়িয়ে ১৪ টাকা ৪৬ পয়সা করা হয়েছে। আর বাণিজ্যিক সংযোগে প্রতি হাজার লিটার পানির দাম ৩৭ টাকা ৪ পয়সা থেকে বাড়িয়ে ৪০ টাকা করা হয়েছে।

একইভাবে আবাসিক সংযোগে চট্টগ্রাম ওয়াসার প্রতি হাজার লিটার পানির দাম ৯ টাকা ৯২ পয়সা থেকে বাড়িয়ে ১২ টাকা ৪০ পয়সা এবং বাণিজ্যিকে ২৭ টাকা ৫৬ পয়সা থেকে বাড়িয়ে ৩০ টাকা ৩০ পয়সা করা হয়েছে।

অর্থাৎ আবাসিক গ্রাহকদের ক্ষেত্রে ঢাকায় পানির দাম ২৪ দশমিক ৯৭ শতাংশ এবং চট্টগ্রামে ২৫ শতাংশ বাড়ছে। আর বাণিজ্যিক সংযোগে ঢাকায় ৭ দশমিক ৯৯ শতাংশ এবং চট্টগ্রামে ৯ দশমিক ৯৪ শতাংশ দাম বেড়েছে পানির।

আবাসিক গ্রাহকদের ক্ষেত্রে ঢাকায় পানির দাম ২৪ দশমিক ৯৭ শতাংশ এবং চট্টগ্রামে ২৫ শতাংশ বাড়ছে। আর বাণিজ্যিক সংযোগে ঢাকায় ৭ দশমিক ৯৯ শতাংশ এবং চট্টগ্রামে ৯ দশমিক ৯৪ শতাংশ দাম বেড়েছে পানির।

এর আগে ২০১৯ সালের ১ সেপ্টেম্বর ঢাকা ওয়াসার পানির দাম বৃদ্ধি করে। সেসময় ঢাকায় আবাসিক সংযোগে ১০ শতাংশের মতো পানির দাম বেড়েছিল

শেয়ার করুন
  • 1
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    1
    Share

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে