রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নিতে মিয়ানমারকে তাগিদ দিল যুক্তরাষ্ট্র

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

রোহিঙ্গা
ফাইল ছবি

গণহত্যা ও নির্যাতনের মুখে বাংলাদেশে এসে আশ্রয় নেয়া লাখ লাখ রোহিঙ্গাকে নিজ দেশ মিয়ানমারে ফিরিয়ে নিতে দেশটির প্রতি তাগিদ দিয়েছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র।

মিয়ানমারের জাতীয় নির্বাচনকে কেন্দ্র করে মঙ্গলবার এক ফোনালাপে অং সান সুচিকে এই আহ্বান জানান যুক্তরাষ্ট্রের রাজনীতি বিষয়ক আন্ডার সেক্রেটারি ডেভিড হেইল। খবর এএফপির।

ফোনালাপে মিয়ানমারে গণতান্ত্রিক সংস্কার, মানবিক ত্রাণ কার্যক্রম এবং নভেম্বরে একটি গ্রহণযোগ্য, স্বচ্ছ ও সমন্বিত জাতীয় নির্বাচনের প্রতি আমেরিকার সমর্থন পুনর্ব্যক্ত করেন হেইল। দুজনের ফোনালাপের এক পর্যায়ে উঠে আসে রোহিঙ্গা ইস্যুটিও। আগামী ৮ নভেম্বর অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে মিয়ানমারের জাতীয় নির্বাচন।

মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তরের এক বিবৃতিতে বলা হয়, আন্ডার সেক্রেটারি হেইল বার্মা সরকারকে দেশব্যাপী সংঘাত অবসানের পাশাপাশি রোহিঙ্গা ও অভ্যন্তরীণভাবে বাস্তচ্যুত অন্যান্য শরণার্থীদের স্বেচ্ছামূলক, নিরাপদ, সম্মানজনক ও দীর্ঘমেয়াদী প্রত্যাবাসন নিশ্চিতে পদক্ষেপ নিতে বার্মিজ সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন।

২০১৭ সালের আগস্টে বর্মি বাহিনীর গণহত্যা ও নির্যাতনের মুখে লাখ লাখ রোহিঙ্গা কক্সবাজারে এসে আশ্রয় গ্রহণ করে। এর আগে আরও কয়েক লাখ রোহিঙ্গা নাগরিক বিভিন্ন সময় বাংলাদেশে এসে আশ্রয় নেয়। সবমিলিয়ে ১১ লাখের বেশি রোহিঙ্গা এখন বাংলাদেশে অবস্থান করছে।

জনবহুল বাংলাদেশের জন্য এই বিশাল জনগোষ্ঠীর চাপ বহন করা কঠিন হয়ে দাঁড়িয়েছে। আন্তর্জাতিক চাপের মুখে মিয়ানমার বারবার তাদের নাগরিকদের ফিরিয়ে নেয়ার কথা বলে নানা তালবাহানা করে একজন রোহিঙ্গাকেও ফিরিয়ে নেয়নি।

এদিকে রোহিঙ্গারা নানা অপরাধমূলক কর্মকাণ্ডে জড়িয়ে পড়ছে। তাদের নিয়ে মারাত্মক সমস্যায় পড়েছে স্থানীয় প্রশাসন। সরকার রোহিঙ্গাদের ফেরাতে কূটনৈতিক তৎপরতা অব্যাহত রেখেছে।

শেয়ার করুন
  • 16
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    16
    Shares

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here