আবরারের আগে মুক্তাকে চাপা দেয় চালক

ডেস্ক রিপোর্ট

ঘাতক বাস চালক সিরাজুল ইসলাম। ছবি : সংগৃহিত
ঘাতক বাস চালক সিরাজুল ইসলাম। ছবি : সংগৃহিত

রাজধানীর যমুনা ফিউচার পার্কের উল্টো পাশের সড়কের জেব্রা ক্রসিংয়ে বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটি অব প্রফেশনালসের (বিইউপি) শিক্ষার্থী আবরার আহম্মেদ চৌধুরীকে চাপা দেওয়ার আগে আরও এক তরুণীকে চাপা দিয়ে আহত করে সুপ্রভাত পরিবহনের চালক সিরাজুল ইসলাম।

সিনথিয়া সুলতানা মুক্তা (২০) নামের ওই তরুণীকে সাহজাদপুরের বাঁশতলা এলাকায় চাপা দেওয়া হয়। বর্তমানে তিনি চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে চালক জানিয়েছে, পথচারী তরুণীকে চাপা দিয়ে সে পালিয়ে আসে। এরপর যমুনা ফিউচার পার্কের উল্টো পাশের সড়কে আবরারকে চাপা দিয়ে পালানোর চেষ্টা করে। এতে আবরার ঘটনাস্থলেই মারা গেলে চালক পালোনোর চেষ্টা করে।

আবরারের বাবা ব্রিগেডিয়ার জেনারেল আরিফ আহমেদ চৌধুরীর দায়ের করা মামলাতেও ওই তরুণীকে চাপা দেওয়ার তথ্য উল্লেখ করা হয়েছে। গুলশান থানার মামলায় তিনি বেপরোয়া, তাচ্ছিল্যপূর্ণ ও দ্রুতগতিতে বাস চালিয়ে পথচারীকে জখমসহ মৃত্যু ঘটনোর অভিযোগ এনেছেন। এতে চালক সিরাজুল ছাড়াও বাসের হেলপার, কন্ট্রাক্টার ও বাস মালিককে অপরাধের সহযোগী হিসেবে আসামি করেছেন।

গুলশান থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মাহবুবুর রহমান জানান, চালক সিরাজুলকে ১০ দিনের রিমান্ড চেয়ে আদালতে পাঠানো হয়েছে। অন্য আসামিদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

শেয়ার করুন
  • 95
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    95
    Shares

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here