খালেদা জিয়ার জামিন আবেদনের শুনানি ২৫ নভেম্বর

আদালত প্রতিবেদক

জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট মামলায় সাত বছরের সাজাপ্রাপ্ত বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার জামিন আবেদনের ওপর  সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগে শুনানি হবে ২৫ নভেম্বর।

আজ রোববার চেম্বার বিচারপতি মো. নূরুজ্জামান এ আদেশ দেন। আদালতে আবেদেনের পক্ষে শুনানি করেন জয়নুল আবেদীন। দুদকের পক্ষে শুনানি করেন মো. খুরশীদ আলম খান।

এর আগে গত বৃহস্পতিবার আপিল বিভাগের সংশ্লিষ্ট শাখায় জামিন চেয়ে আপিল আবেদন করেন খালেদা। ওই দিন আপিল বিভাগের সংশ্লিষ্ট শাখায় ১৪০১ পৃষ্ঠার আপিল আবেদন দাখিল করা হয় বলে গণমাধ্যমকে জানান খালেদা জিয়ার আইনজীবী প্যানেলের সদস্য সগীর হোসেন লিওন।

গত ৩১ জুলাই বিচারপতি ওবায়দুল হাসান ও বিচারপতি এস এম কুদ্দুস জামানের হাইকোর্ট বেঞ্চ এই মামলায় খালেদা জিয়ার জামিন আবেদন খারিজ করে। হাইকোর্টের খারিজ আদেশের বিরুদ্ধে ও জামিন চেয়ে আপিল করলেন বিএনপি-প্রধানের আইনজীবীরা।

গত ৩০ এপ্রিল জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় সাত বছরের দণ্ডের বিরুদ্ধে খালেদা জিয়ার আপিল শুনানির জন্য গ্রহণ করে হাইকোর্ট। একই সঙ্গে অর্থদণ্ড স্থগিত এবং সম্পত্তি জব্দের ওপর স্থিতাবস্থা দিয়ে দুই মাসের মধ্যে ওই মামলার নথি তলব করা হয়েছিল। এরপর ২০ জুন বিচারিক আদালত থেকে মামলার নথি হাইকোর্টে পাঠানো হয়।

২০১৮ সালের ২৯ অক্টোবর পুরান ঢাকার কেন্দ্রীয় কারাগারের প্রশাসনিক ভবনের সাত নম্বর কক্ষে স্থাপিত ঢাকার বিশেষ জজ আদালত-৫ এর বিচারক মো. আখতারুজ্জামান জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট মামলায় খালেদা জিয়াকে সাত বছরের সশ্রম কারাদণ্ড ও অর্থদণ্ড দেন। এ রায়ের বিরুদ্ধে ওই বছরের ১৮ নভেম্বর হাইকোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় আপিল করা হয়।

তার আগে ২০১৮ সালের ৬ ফেব্রুয়ারি জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় সাজা হয় বিএনপি-প্রধানের। এরপর থেকে তিনি কারাগারে বন্দি। বর্তমানে কারা হেফাজতে বঙ্গবন্ধু মেডিকেলে চিকিৎসাধীন আছেন খালেদা জিয়া।

শেয়ার করুন
  • 3
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    3
    Shares

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে